নবীগঞ্জে পুরো হিন্দু পরিবারের ইসলাম ধর্ম গ্রহন

0
271

হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ পৌরসভার শিবপাশা গ্রামের সনাতন ধ’র্মাবলম্বী একটি পরিবার ইস’লাম ধ’র্ম গ্রহন করেছেন। পরিবারের সন্তান প্রিটুল কান্তি দাশ এখন শেখ মুহাম্ম’দ আবদুর রহমান। তিনি তার মা এবং বড় বোনসহ ইস’লাম ধ’র্ম গ্রহন করেছেন। গত রবিবার হবিগঞ্জ কোর্টে নোটারি পাবলিকের মাধ্যমে এফিডেফিট করে তিনি হিন্দু ধ’র্ম ত্যাগ করে ইস’লাম ধ’র্ম গ্রহন করেন।
প্রিটুল কান্তির সাথে কথা হলে তিনি জানান যে, হযরত মুহাম্ম’দ (সাঃ) এর জীবনী পড়েন এবং আসেপাশের মু’সলমান ও বন্ধুদের চলাফেরা আচার আচরণে তিনি ইস’লাম স’ম্পর্কে ধারনা লাভ করেন এবং মনে প্রা’ণে বিশ্বা’স করতে থাকেন। তারই ধারাবাহিতায় তিনি এবং তার পরিবার ইস’লাম ধ’র্ম গ্রহনের সিদ্ধান্ত নেন। বুধবার সন্ধ্যা আরজু ডিপার্টমেন্টাল স্টোরে সর্বদলীয় উলামা পরিষদ, ব্যবসায়ী ও রাজনৈতিক ব্যাক্তি বর্গের সামনে কালেমা পাঠের মাধ্যমে তিনি এবং তার পরিবার ইস’লাম ধ’র্ম গ্রহন করেন।

চলতি বছরে শান্তিতে নোবেল পুরস্কার পেয়েছেন ইথিওপিয়ার প্রধানমন্ত্রী আবি আহমেদ আলী। শান্তি ও আন্তর্জাতিক সহযোগিতার জন্য তাকে এ পুরস্কার দেয়া হয়েছে। শুক্রবার নরওয়ের স্থানীয় সময় সকাল ১১টায় (বাংলাদেশ সময় বিকেল ৩টা) রাজধানী অসলো থেকে নরওয়েজিয়ান নোবেল কমিটি এবারের শান্তিতে নোবেল পুরস্কার বিজয়ীর নাম ঘোষণা করে।

গত বছর ইরিত্রিয়ার সঙ্গে একটি শান্তি চুক্তিতে সম্মত হয় ইথিওপিয়া। ক্ষমতায় আসার মাত্র ছয়মাসের মধ্যেই তিনি এই অবিশ্বাস্য সিদ্ধান্তটি নিয়েছেন। এতে ১‌৯৯৮-২০০০ সালের সীমান্ত যুদ্ধের পর গত ২০ বছরের অচলাবস্থার নিরসন হয়েছে। ওই যুদ্ধে ৭০ হাজারের বেশি লোক নিহত হয়েছেন। নোবেল পুরস্কারের ওয়েবসাইটে দেয়া তথ্যমতে, এ বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কারের জন্য ৩০১টি মনোনয়ন জমা পড়েছিল

এর মধ্যে ২২৩ জন ব্যক্তি ও বাকি ৭৮টি প্রতিষ্ঠান। তবে গত ৫০ বছর ধরেই বিজয়ীর নাম ঘোষণার আগে মনোনীতদের তালিকা প্রকাশ করে না নোবেল কর্তৃপক্ষ। আগামী ডিসেম্বরে অসলোতে বিজয়ীকে নয় মিলিয়ন সুইডিশ ক্রোনার পুরস্কার দেয়া হবে। ২০১৮ সালে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর ইথিওপিয়ায় ব্যাপক উদারীকরণ সংস্কার করেন আবি আহমেদ। দেশটির কঠোর নিয়ন্ত্রীত সমাজ ব্যবস্থায় তিনি বড় ধরনের একটা নাড়া দিতে সক্ষম হয়েছেন।

কারাগার থেকে কয়েক হাজার বিরোধী দলীয় নেতাকে তিনি মুক্ত করে দেন। এরমধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে-তিনি প্রতিবেশী ইরিত্রিয়ার সঙ্গে দুই দশকের যুদ্ধের ইতি ঘটিয়ে একটি শান্তি চুক্তি সই করেন। পারমাণবিক অস্ত্রমুক্ত বিশ্ব গড়ার চেষ্টায় গত বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কার পায় ইন্টারন্যাশনাল ক্যাম্পেইন টু অ্যাবোলিশ নিউক্লিয়ার উইপনস- আইসিএএন।

আগামী ১৪ অক্টোবর অর্থনীতিতে এবারের নোবেল বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হবে। গরিব কৃষকের সন্তান, গোয়েন্দা কর্মকর্তা থেকে আফ্রিকার দ্রুত বর্ধমান অর্থনীতির সংস্কারের নেপথ্য নায়কে পরিণত হয়েছেন আবি। প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে কয়েক দশকের ঘা-কে তিনি সেরে তুলেছেন। তাকে দেশটির এক অবিশ্বাস্য নেতা হিসেবে আখ্যায়িত করা হচ্ছে। শুক্রবার নোবেল জয়ের মধ্য দিয়ে তার জীবনের অবিশ্বাস্য গল্পের নতুন একটি অধ্যায় সূচিত হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here